হকার্স নেতা কমরেড আবুল হোসেনের মৃত্যুতে সংবাদপত্র হকার্স সমিতির শোকসভা

,
প্রকাশিত : ০৫ ডিসেম্বর, ২০২০     আপডেট : ৩ মাস আগে
  • 14
  •  
  •  
  •  
  •  
  •  
  •  
  •  
  •  
    14
    Shares

সিলেট জেলা সংবাদপত্র হকার্স ইউনিয়নের সাবেক সভাপতি ও সিলেট জেলা ওয়াকার্স পার্টির সাবেক সভাপতি মরহুম কমরেড আবুল হোসেনের মৃত্যুতে শোকসভা ও দোয়া মাহফিল অনুষ্টিত।
গত শুক্রবার সন্ধ্যা ৬ টায় সিলেট মহানগর সংবাদপত্র হকার্স সমিতির পৌরবিপনীস্থ কার্যালয়ে অনুষ্টিত শোকসভা ও দোয়া মাহফিলে সভাপতিত্ব করেন সিলেট মহানগর সংবাদপত্র হকার্স সমিতি লি: এর সভাপতি মো: আব্দুস সালাম।
হকার্স সমিতির সাধারণ সম্পাদক শাহ আলমের পরিচালায় উক্ত অনুষ্টানে অনান্যদের মধ্যে উপস্তিত ছিলেন উদয়ন নিউজ এজেন্সি (সিলেট) এর সত্তাধিকারী সিলেট জেলা ওয়াকার্স পার্টিও সভাপতি কমরেড সিকন্দর আলী, সাজু নিউজ এজেন্সির মালিক সিরাজুল ইসলাম খান, সংবাদপত্র হকার্স সমিতির সাবেক সভাপতি শাহ আলম, সাবেক সাধারণ সম্পাদক কামাল মজুমদার, হকার্স সমিতির উপদেষ্টা আব্দুল মালেক, প্রবিন সদস্য সৈয়দ দারা মিয়া, মফিজ দেওয়ান, সংবাদপত্র হকার্স ইউনিয়নের সভাপতি রফিক দেওয়ান, সহ সভাপতি মো: শাহ-জালাল, মরহুম আবুল হোসেনের ছোট ভাই আব্দুল মন্নান, সিলেট জেলা সংবাদপত্র হকার্স সমিতির সাধারণ সম্পাদক মাসুক গাজী, মহানগর সংবাদপত্র হকার্স সমিতির সহ সভাপতি মামুনুর রশিদ, সহ-সাধারণ সম্পাদক দেলোয়ার হোসেন দিলু, সাংগঠনিক সম্পাদক মনির হোসেন, কোষাধক্ষ্য আবু সালেহ, দপ্তর সম্পাদক হারুনুর রশিদ, সদস্য আব্দুল বাসিত, অনুষ্টানে দোয়া পরিচালনা করেন পৌরবিপনী মার্কেট মসজিদের ইমাম মো. আবুল কালাম।
শোক সভায় মরহুম আবুল হোসেনের কর্মের স্মৃতি চারণ করতে গিয়ে বক্তারা বলেন, তিনি ছিলেন একাধারে একজন শ্রমিক নেতা ও সংবাদপত্র হকার্স সদস্যদের অভিবাবক। উনার মৃত্যুতে হকার্স সমিতি হারিয়েছেন তাদের একজন অতি আপনজন। এ সময় মরহুমের আত্মার মাগফেরাত কামনা ও পরিবারের প্রতি গভির সমবেদনা জানানো হয়। কমরেড আবুল হোসেন ১৯৬৩ সালের ১লা জানুয়ারি সিলেটে জন্মগ্রহন করেন। মৃত্যুকালে তিনি ২ ছেলে ও ১ মেয়ে রেখে গেছেন। কমরেড আবুল হোসেন পেশাগত জীবনে একজন সংবাদপত্র এজেন্সি ব্যবসায়ী ছিলেন। আশির দশকে শ্রমিক আন্দোলনের মাধ্যমে সরাসরি তিনি রাজনীতিতে জড়িয়ে পড়েন। শ্রমিকদের অধিকার আদায়ের লড়াইকে বেগবান করতে সংবাদপত্র হকার্স ইউনিয়ন, ভ্যান শ্রমিক ইউনিয়নসহ বিভিন্ন সংগঠন গড়ে তোলেন। বিশিষ্ট বাম রাজনীতিবিদ কমরেড ইসহাক কাজলের হাত ধরে তিনি বাংলাদেশের ওয়ার্কার্স পার্টির সাথে যুক্ত হন। মৃত্যুর পূর্ব পর্যন্ত তিনি ওয়ার্কার্স পার্টির সাথে যুক্ত ছিলেন। তিনি দীর্ঘদিন ওয়ার্কার্স পার্টি সিলেট জেলার সম্পাদকের দায়িত্ব পালন করেন। পরবর্তীতে তিনি পার্টির সিলেট জেলা কমিটির সভাপতির দায়িত্ব নেন এবং কেন্দ্রিয় সদস্য নির্বচিত হন। মেহনতি মানুষের অধিকার আদায়ের রাজপথের লড়াকু সৈনিক আজীবন বিপ্লবী আবুল হোসেন শ্রমিক আন্দোলনের পাশাপাশি স্বৈরাচার বিরোধী আন্দোলন, তত্বাবধায়ক সরকারের দাবী আন্দোলন, টিপাইমুখবাঁধ বিরোধী আন্দোলন, শাবিপ্রবি নামকরণের আন্দোলন, তেল-গ্যাস বিদ্যুৎ বন্দর রক্ষার আন্দোলন, অর্পিত সম্পত্তি রক্ষার আন্দোলন, যুদ্ধাপরাধীদের বিচারের দাবীতে আন্দোলনসহ আঞ্চলিক ও জাতীয় সকল আন্দোলনে নেতৃত্ব দিয়েছেন।


  • 14
  •  
  •  
  •  
  •  
  •  
  •  
  •  
  •  
    14
    Shares

আরও পড়ুন

শহীদ আলকাছ দিবস আজ

         বৃটিশ বিরোধী আন্দোলনে সিলেটের প্রথম...

মুসলিম জীবনে হজ্বের তাৎপর্য

         বায়েজীদ মাহমুদ ফয়সল: হজ্ব ইসলামের...

নির্বাচন থেকে সরে দাঁড়ালেন বিএনপি’র নুরুল হুদা

         নির্বাচন থেকে সরে দাঁড়িয়েছেন সদর...

৪১ বাস নিয়ে নামছে ‘নগর এক্সপ্রেস’

         সিলেট নগরবাসীর পরিবহন ভোগান্তি নিরসন...