সিলেট মহানগর আওয়ামী লীগের কার্যকরী কমিটির সভা অনুষ্ঠিত

,
প্রকাশিত : ১৭ জুলাই, ২০১৯     আপডেট : ১ বছর আগে
  •  
  •  
  •  
  •  
  •  
  •  
  •  
  •  
  •  

সিলেট মহানগর আওয়ামী লীগের কার্যকরী কমিটির সভা অনুষ্ঠিত হয়েছে। গতকাল মঙ্গলবার সন্ধ্যায় নগরীর সোবহানীঘাটস্থ ইব্রাহিম স্মৃতি সংসদে এ সভার আয়োজন করা হয়। সভায় সভাপতিত্ব করেন আওয়ামী লীগের কেন্দ্রীয় কার্যনির্বাহী সংসদের সদস্য ও সিলেট মহানগর সভাপতি সাবেক মেয়র বদর উদ্দিন আহমদ কামরান। মহানগর সাধারণ সম্পাদক আসাদ উদ্দিন আহমদের পরিচালনায় সভায় যথাযোগ্য মর্যাদায় জাতির পিতা বঙ্গবন্ধু শেখ মুজিবুর রহমানের নির্মম হত্যাকান্ডের জাতীয় শোক দিবস ১৫ আগস্ট পালন করার সিদ্ধান্ত গ্রহণ করা হয়। কর্মসূচির মধ্যে রয়েছে- দলীয় কার্যালয়ে জাতীয় ও দলীয় পতাকা অর্ধনিমিত করা, মহানগর আওয়ামী লীগের উদ্যোগে শোক র‌্যালি, বিভিন্ন ওয়ার্ডে-ওয়ার্ডে দোয়া মাহফিল পালন, মহানগরের সকল মসজিদ, মন্দির ও গির্জায় মিলাদ মাহফিল ও প্রার্থনা করা। সভায় ৭ আগস্ট বর্বরোচিত গ্রেনেড হামলার প্রতিবাদে আলোচনা সভা ও দোয়া মাহফিল পালন করার সিদ্ধান্ত গৃহীত হয়। এছাড়া মাননীয় প্রধানমন্ত্রী জননেত্রী শেখ হাসিনাকে ২১ আগস্ট ধানমন্ডি কার্যালয়ে আওয়মী লীগের জনসভায় হত্যা চেষ্ঠার প্রতিবাদে জনসভা করার সিদ্ধান্ত গ্রহণ করা হয়। সভায় ২৭টি ওয়ার্ড কমিটিকে আরো গতিশীল করার লক্ষ্যে ব্যাপক আলাপ-আলোচনার করা হয়। ২৭টি ওয়ার্ডে আওয়ামী লীগের সাংগঠনিক কার্যক্রম গতিশীল করতে এবং বিভিন্ন কর্মসূচিতে প্রতিটি ওয়ার্ডকে আরো সক্রিয়ভাবে অংশগ্রহণের অনুরোধ জানান নেতৃবৃন্দ।
সভাপতির বক্তব্যে বদর উদ্দিন আহমদ কামরান বলেন, ১৯৭৫ সালের ১৫ আগস্ট জাতির পিতা ও তার পরিবারকে নির্মমভাবে হত্যা করে স্বাধীনতাবিরোধী শক্তি এদেশে পাকিস্তানের এজেন্ডা বাস্তবায়ন করতে চেয়েছিল। মুক্তিযুদ্ধের চেতনাকে ধ্বংস করতে চেয়েছিল। মাননীয় প্রধানমন্ত্রীর নেতৃত্বে এদেশে সেইসব ঘাতকদের বিচার হয়েছে। তাদের পেতাত্মারা এখনো অনবররত এদেশে অশান্তি ও বিশৃঙ্খলা তৈরির চেষ্ঠায় লিপ্ত আছে। এসকল স্বাধীনতাবিরোধী শক্তির ব্যাপারে সবাইকে সতর্ক থাকতে হবে।
মহানগর সাধারণ সম্পাদক আসাদ উদ্দিন আহমদ বলেন, আগস্ট মাস আমাদের জন্য অত্যন্ত বেদনাদায়ক ও কষ্টের। তবে সময়ের ব্যবধানে আজ বঙ্গবন্ধুর কন্যার নেতৃত্বে বাংলাদেশ বিশে^র বুকে মাথা উচু করে দাঁড়িয়েছে। তিনি স্বাধীনতাবিরোধী শক্তির অপচেষ্ঠার ব্যাপারে সবাইকে সতর্ক থাকার আহবান জানান।
সভায় অন্যদের মধ্যে বক্তব্য রাখেন, আলহাজ¦ সিরাজুল ইসলাম, এডভোকেট রাজ উদ্দিন, বীর মুক্তিযোদ্ধা আব্দুল খালিক, ফয়জুল আনোয়ার আলাওর, অধ্যাপক জাকির হোসেন, এটিএমএ হাসান জেবুল, এডভোকেট শামসুল ইসলাম, এডভোকেট কিশোর কুমার কর, আব্দুর রহমান জামিল, আজাদুর রহমান আজাদ, আজহার উদ্দিন জাহাঙ্গীর, দিবাকর ধর রাম, জুবের খান, প্রিন্স ছদরুজ্জামান, আকবর আলী, আজম খান, মহিউদ্দিন আহমদ লোকমান, নজমুল ইসলাম এহিয়া, আব্দুল মুকিত, জামাল আহমদ চৌধুরী, ইঞ্জিনিয়ার সিরাজুল ইসলাম, আজিজুল হক মঞ্জু, জাফর আহমদ চৌধুরী, আব্দুস সোবহান প্রমুখ।
সভায় বক্তারা আরো বলেন, সিলেট সিটি কর্পোরেশনের উন্নয়নের নামে অপরিকল্পিতভাবে রাস্তাঘাট খুড়াখুড়ির ফলে জলাবদ্ধতা ও জনভোগান্তিরর সৃষ্টি হয়েছে। বক্তারা প্রতিটি ওয়ার্ডের কাউন্সিলর ও মহিলা কাউন্সিলরদের সমন্বয়ে আলাপ আলোচনার ভিত্তিতে ওয়ার্ডভিত্তিক উন্নয়ন করার আহবান জানান।


  •  
  •  
  •  
  •  
  •  
  •  
  •  
  •  
  •  

আরও পড়ুন