শ্রীমঙ্গলে বিরল প্রজাতির ফোটা লেজি কুকরি সাপ উদ্ধার

Alternative Text
,
প্রকাশিত : ২৭ আগস্ট, ২০১৮     আপডেট : ৩ বছর আগে
  •  
  •  
  •  
  •  
  •  
  •  
  •  
  •  

মৌলভীবাজার থেকে সংবাদদাতা ॥ শ্রীমঙ্গলে বিরল প্রজাতির ফোটা লেজি কুকরি সাপ লোকালয় থেকে উদ্ধার করেছে বাংলাদেশ বন্যপ্রাণী সেবা ফাউন্ডেশন। লেজ ফুল আকৃতির, আর মাথা থেকে লেজ পর্যন্ত শরীর কালো ও ইট রঙের। এর নিচের অংশ সাদা রঙের বিন্দু আকৃতিতে ঢাকা; ত্রিকোণা মাথাটি আবার কালো রঙের আবরণে পূর্ণ।
বাংলাদশে বন্যপ্রাণী সেবা ফাউন্ডেশনের চেয়ারম্যান সিতেশ রঞ্জন দেব জানান-এটাকে ফোটা লেজি কুকরি সাপ নামে জানেন অনেকে। এক সময় বন-জঙ্গলে এই সাপের অবাধ বিচরণ থাকলেও এখন তা বিলুপ্তির তালিকায়।
সাপটির বাংলা নাম ফোটা লেজি কুকরি সাপ। এর ইংরেজি নাম স্পট-টেইলড কুকরি স্নেক, বৈজ্ঞানিক নাম অলিগডোন ডোরসালিস। তিনি আরো জানান- এটি নির্বিষ সাপ বলে শনাক্ত করেন জাহাঙ্গীরনগর বিশ্ববিদ্যালয়ের প্রাণিবিদ্যা বিভাগের অধ্যাপক বন্যপ্রাণী গবেষক ড. কামরুল হাসান। তিনি বলেন, এটি বন-জঙ্গলের সাপ। বর্ষা মৌসুম বা বর্ষাপরবর্তী সময়ে দেখা মিলত। তবে প্রাণীটি এখন বিলুপ্তপ্রায়।
বাংলাদেশ বন্যপ্রাণী সেবা ফাউন্ডেশনের পরিচালক সজল দেব জানান, শ্রীমঙ্গলের লামুয়া এলাকা থেকে গতকাল শনিবার বিকেলে সাপটিকে উদ্ধার করে সেবা ফাউন্ডেশনে নিয়ে আসা হয়েছে। কিছুটা সুস্থ হয়ে উঠলেই লাউয়াছড়া জাতীয় উদ্যানে সাপটিকে অবমুক্ত করা হবে। এর খাদ্য তালিকায় রয়েছে ছোট ছোট ব্যাঙ, কীট-পতঙ্গ বা ছোট ছোট সরীসৃপের ডিম।
এর লেজের অংশ লাল। সাপটি কাউকে ভয় দেখিয়ে নিরাপদ দূরত্বে চলে যাবার কৌশল হিসেবে তার পেছনের লেজটি দ্রুত উল্টে সেই লাল অংশটি প্রদর্শন করে থাকে বলে জানান বন্যপ্রাণী গবেষক ড. কামরুল হাসান।


  •  
  •  
  •  
  •  
  •  
  •  
  •  
  •  

পরবর্তী খবর পড়ুন : সিলেটিরা সারা বিশ্বে ছড়িয়ে

আরও পড়ুন