শাবিতে শিক্ষার্থীদের উপর হামলার প্রতিবাদে ইসলামী ছাত্র আন্দোলন জেলা ও মহানগর’র মনববন্ধন

,
প্রকাশিত : ১৯ জানুয়ারি, ২০২২     আপডেট : ৪ মাস আগে

শাবিপ্রবিতে আন্দোলনরত শিক্ষার্থীদের উপর ছাত্রলীগ ও পুলিশের হামলার প্রতিবাদে ইসলামী ছাত্র আন্দোলন বাংলাদেশ সিলেট জেলা ও মহানগর শাখার উদ্যোগে নগরীর কোর্ট পয়েন্টে মানববন্ধন অনুষ্ঠিত হয়েছে।
গত (১৭ জানুয়ারি) সোমবার বাদ আছর সিলেট কালেক্টর মসজিদের সামনে জেলা সভাপতি ছাত্রনেতা শেখ আব্দুল্লাহ আল মামুন এর সভাপতিত্বে ও সাধারণ সম্পাদক মুহাম্মাদ মকবুল হোসাইন এর সঞ্চালনায় অনুষ্ঠিত মানববন্ধনে প্রধান অতিথির বক্তব্যে কেন্দ্রীয় সাংগঠনিক বিভাগের উপ-সম্পাদক ছাত্রনেতা আবু তাহের মিসবাহ বলেন, সিলেট শাহজালাল বিজ্ঞান ও প্রযুক্তি বিশ্ববিদ্যালয়ে বেগম সিরাজুন্নেছা চৌধুরী ছাত্রী হলের অব্যবস্থাপনা, স্টাফ ও প্রভোস্টের অসদাচরণ এবং অনিয়মের বিরুদ্ধে প্রভোস্ট কমিটির পদত্যাগের দাবিসহ তিন দফা দাবিতে আন্দোলনরত শিক্ষার্থীদের উপর পুলিশ, বিশ্ববিদ্যালয় প্রশাসন এবং ছাত্রলীগের নেতাকর্মীরা গত শনিবার প্রক্টর ড. আলমগীর কবিরের উপস্থিতিতে হামলা চালিয়েছে। এতে প্রায় ১০-১২ জন শিক্ষার্থী আহত হয়। এই হামলাকারীদের মধ্যে বিশ্ববিদ্যালয়ের সাবেক ছাত্রলীগ নেতা ও বর্তমান এক কর্মকর্তাও আছেন। প্রক্টরের উপস্থিতিতে কি করে শিক্ষার্থীদের উপর এমন ন্যাক্কারজনক হামলা হয় তা বোধের অতীত।
বিশেষ অতিথির বক্তব্যে কেন্দ্রীয় শুরা সদস্য ছাত্রনেতা মুহাম্মাদ নূরুদ্দীন বলেন, আজকের এই মানববন্ধন থেকে শিক্ষার্থীদের উপর এই ধরণের ন্যাক্কারজনক হামলার তীব্র নিন্দা ও প্রতিবাদ এবং হামলার ঘটনায় জড়িত সকলকে দ্রুত বিচারের আওতায় আনার জোর দাবী জানাচ্ছি। পাশাপাশি হামলার হুকুমদাতা হিসাবে ভিসি ও প্রক্টরকে অবিলম্বে পদত্যাগ করার দাবী জানাচ্ছি। তিনি আরো বলেন ছাত্ররা তাদের অধিকার নিয়ে আন্দোলন করতে পারে, কিন্তু এতে ক্ষমতাসীন দলের লেলিয়ে দেওয়া ক্যাডারদের হামলা দেশ ও জাতির জন্য অশনি সংকেত।
জেলা সভাপতি শেখ আব্দুল্লাহ আল মামুন তার বক্তব্যে বলেন ইসলামী ছাত্র আন্দোলন বাংলাদেশ মনে করে, এই ফ্যাসিবাদী সময়ে বিশ্ববিদ্যালয়ের শিক্ষকরাও আর আদতে শিক্ষক নেই; জুলুমতান্ত্রিক কাঠামোর প্রশাসকই হয়ে উঠছে তারা। এ কারণে আন্দোলনরত শিক্ষার্থীদের মতামত দমনে ছাত্রলীগের নেতাকর্মীদের ব্যবহার করছে তারা। ভিসির উস্কানিতে আন্দোলন ঠেকাতে সরকারি পেটোয়া বাহিনী পুলিশ ক্যাম্পাসে ঢুকে লাঠিচার্জ, সাউন্ড গ্রেনেড, টিয়ারশেল, রাবার বুলেট ছুঁড়ে আহত করেছে অসংখ্য শিক্ষার্থীকে। তিনি আরো বলেন- দেশের যে প্রান্তেই ছাত্রদের উপর কোন সমস্যা আসবে, ছাত্র আন্দোলন এর ব্যাপারে সর্বদা সোচ্চার থাকবে, ইনশাআল্লাহ।
মানববন্ধনে অন্যান্যের মধ্যে বক্তব্য রাখেন ইসলামী যুব আন্দোলন সিলেট মহানগর শাখার সভাপতি যুবনেতা মাও. জহিরুল ইসলাম, ইসলামী শ্রমিক আন্দোলন সিলেট মহানগর শাখার সেক্রেটারি সিদ্দিকুর রহমান, জেলা ও মহানগর শাখার সাংগঠনিক সম্পাদক আরিফুল ইসলাম শামীম ও সাব্বির আহমদ তপুসহ জেলা-নগর অন্যান্য নেতৃবৃন্দ।


আরও পড়ুন

সিলেট মহানগর কোতোয়ালী পশ্চিম থানা জামায়াতের ঈদ পূণর্মিলনী অনুষ্ঠান

 জামায়াতে ইসলামীর কেন্দ্রীয় কর্মপরিষদ সদস্য...

বিএমবিএফ সিলেট বিভাগের আহবায়ক কমিটির প্রথম পরিচিত সভা অনুষ্ঠিত

 সিলেট এক্সপ্রেস ডেস্ক: বাংলাদেশ মানবাধিকার...

শহীদদের প্রতি ফোঁটা রক্তের বদলা নেওয়া হবে : বাবুনগরী

 ভারতের প্রধানমন্ত্রী নরেন্দ্র মোদি বিরোধী...