শান্তিতে বিজয় অর্জন করতে হলে গণতন্ত্রকে প্রাতিষ্ঠানিক রূপ দিতে হবে

প্রকাশিত : ০৯ অক্টোবর, ২০১৮     আপডেট : ১ বছর আগে  
  

ডেমোক্রেসি ইন্টারন্যাশনালের উদ্যোগে ‘শান্তিতে বিজয়, শান্তি জিতলে জিতবে দেশ’ শীর্ষক এক রাজনৈতিক সংলাপ গতকাল সোমবার সকালে নগরীর দরগাহ গেইটস্থ একটি অভিজাত হোটেলে অনুষ্ঠিত হয়। সৈয়দ সাইমুন আনজুম ইভান ও ডাঃ ফাহিমা ইয়াসমিনের যৌথ সঞ্চালনায় সংলাপ অনুষ্ঠানে প্যানেল বক্তা হিসেবে আলোচনায় অংশ নেন- বাংলাদেশ আওয়ামী লীগের সাংগঠনিক সম্পাদক এডভোকেট মিসবাহ উদ্দিন সিরাজ,বাংলাদেশ জাতীয়তাবাদী দলের সাংগঠনিক সম্পাদক ডাঃ শাখাওয়াত হাসান জীবন,সিলেট জেলা আওয়ামীলীগের সাধারণ সম্পাদক ও সাবেক সংসদ সদস্য শফিকুর রহমান চৌধুরী, বিএনপির কেন্দ্রীয় সহ-সাংগঠনিক সম্পাদক, সুনামগঞ্জ জেলা বিএনপির সভাপতি, সাবেক এমপি কলিম উদ্দিন মিলন, সুনামগঞ্জ জেলা আওয়ামী লীগের সাধারণ সম্পাদক ব্যারিস্টার এনামুল কবির ইমন,আওয়ামী লীগের সাবেক কেন্দ্রীয় নির্বাহী সদস্য ও সাবেক সংসদ সদস্য সৈয়দা জেবুন্নেছা হক,সংসদ সদস্য এডভোকেট শাহানা রব্বানী, সিলেট জেলা বিএনপির সাধারণ সম্পাদক আলী আহমদ, সিলেট মহানগর বিএনপির ভারপ্রাপ্ত সাধারণ সম্পাদক আজমল বক্ত চৌধুরী সাদেক, সিলেট জেলা আওয়ামী লীগের সাংগঠনিক সম্পাদক এটিএম হাসান জেবুল, মৌলভী বাজার জেলা বিএনপির সাধারণ সম্পাদক মিজানুর রহমান মিজান, মৌলভীবাজার জেলা আওয়ামী লীগের সিনিয়র সহ সভাপতি অপূর্ব কান্তি ধর, হবিগঞ্জ জেলা বিএনপির সাংগঠনিক সম্পাদক এডভোকেট এনামুল হক সেলিম,সিলেট জেলা আইনজীবী সমিতির সাবেক সভাপতি ই ইউ শহীদুল ইসলাম শাহীন ।

স্বাগত বক্তব্য রাখেন-ডেমোক্রেসি ইন্টারন্যাশনালের প্রোগ্রাম কো অর্ডিনেটর আমিনুল এহসান। সংলাপে বক্তারা বলেন, শান্তিতে বিজয় অর্জন করতে হলে গণতন্ত্রকে প্রাতিষ্ঠানিক রূপ দিতে হবে। দেশ প্রেম থাকতে হবে। দেশ ও জাতির প্রতি দায়িত্ববোধ,আদর্শের প্রতি আস্থা রেখে এগিয়ে যেতে হবে। এ দেশ সকলের । অতীতের সব ভুলে ঐক্যবদ্ধ ভাবে সুন্দর আগামীর পথ চলতে হবে। সংবিধানকে সমুন্নত রেখে আগামী জাতীয় নির্বাচন অবাধ, সুষ্ঠু, নিরপেক্ষ এবং শান্তিপূর্ণ করার লক্ষ্যে সম্মিলিত প্রয়াস চালাতে হবে। গণতান্ত্রিক ধারা অব্যাহত রাখতে নির্বাচনের বিকল্প নেই। দেশে সুষ্ঠু ও শান্তিপূর্ণ নির্বাচনী পরিবেশ সৃষ্টি করতে সরকার ও বিরোধী দলকে আন্তরিক হতে হবে। অনুষ্ঠানে বক্তারা আরো বলেন, শান্তিপূর্ণ নির্বাচনী পরিবেশ বজায় রাখতে সবাইকে সহায়তা করতে হবে। একটি সফল নির্বাচন পূর্বশর্ত হলো শান্তি। নিঃসন্দেহে অশান্তিপূর্ণ নির্বাচন বাংলাদেশের নাগরিকদের জন্য ক্ষতিকর। ভোটাররা শান্তিপূর্ণ রাজনীতির পক্ষে । যে নেতা, প্রার্থী ও দল শান্তিপূর্ণ রাজনীতি চর্চা করবে তাকেই জনগণ সমর্থন করবে। এবারের নির্বাচনে শান্তিপূর্ণভাবে নির্বাচনী প্রচার পরিচালনা , জনগণের ভোটাধিকার রক্ষায় সচেষ্ট থাকার অঙ্গীকার করেন।

অনুষ্ঠানে উপস্থিত ছিলেন-সিলেট জেলা বিএনপির সহ-সভাপতি সামিয়া বেগম চৌধুরী,সিলেট জেলা আওয়ামী লীগের সাংগঠনিক সম্পাদক, হুমায়ুন ইসলাম কামাল, দপ্তর সম্পাদক সাইফুল আলম রুহেল, সিলেট মহানগর আওয়ামী লীগের সাংগঠনিক সম্পাদক নুরুল ইসলাম পুতুল, প্রচার সম্পাদক আব্দুর রহমান জামিল, মৌলভী বাজার জেলা আওয়ামী লীগ নেতা অজয় সেন, এডভোকেট নিখিল দাস,গোলাম রব্বানী,ডেমোক্রেসি ইন্টারন্যাশনালের রাজনৈতিক ফেলো মহানগর বিএনপির সাংগঠনিক সম্পাদক মুর্শেদ আহমদ মুকুল ও সিলেট মহানগর যুবলীগের প্রচার ও প্রকাশনা সম্পাদক জাহিদ সারোয়ার, সিলেট মহানগর মহিলা আওয়ামী লীগের সভানেত্রী ও সিলেট সিটি কর্পোরেশনের সংরক্ষিত মহিলা কাউন্সিলর শাহানারা বেগম, মহানগর বিএনপির সহ-সভাপতি রেজাউল হাসান কয়েছ লোদী, জেলা বিএনপির যুগ্ম সম্পাদক মাহবুর রব চৌধুরী ফয়সল, আব্দুল আহাদ খান জামাল, মাহবুব চৌধুরী, সিলেট জেলা বিএনপির সাংগঠনিক সম্পাদক সাবেক সদর উপজেলা ভাইস চেয়ারম্যান আবুল কাশেম, সুনামগঞ্জ জেলা আওয়ামী লীগের বিজ্ঞান ও প্রযুক্তি বিষয়ক সম্পাদক এডভোকেট আব্দুল আজাদ রুম্মান, খোকন কুমার দত্ত এডভোকেট, গোলাম রব্বানী, মোঃ আখতারুজ্জামান ,অজয় সেন, সিলেট জেলা যুবলীগ সাবেক সহ-সভাপতি সুয়েব আহমদ,দক্ষিণ সুরমা বিএনপির সাধারণ সম্পাদক শামীম আহমদ, রেজাউল করিম আলো, শামিম মজুমদার, মাখরুল ইসলাম, সুরমান আলী, সোহাদুর রব চৌধুরী, সিলেট মহানগর মহিলা দলের সভানেত্রী জাহানারা বেগম, সাধারণ সম্পাদিকা সিগার সুলতানা ডেইজী, মহানগর বিএনপি নেতা আফজল উদ্দিন,ডেমোক্রেসি ইন্টারন্যাশনালের সিলেট রিজিওনালের কো-অর্ডিনেটর সুদীপ্ত চৌধুরী,ডেপুটি কো-অর্ডিনেটর রাহিমা বেগম, জেলা মহিলা আওয়ামী লীগের শ্রম বিষয়ক সম্পাদিকা এডভোকেট শাবানা ইসলাম, মহিলা বিষয়ক সম্পাদক নিগার সুলতানা কেয়া, সিলেট জেলা মহিলা লীগ সদস্য তারান্নুম চৌধুরী, মহানগর সহ-সভাপতি মিনারা হুসেইন, বিলকিস জাহাান, মহানগর, সহ-সভাপতি, ফাতেমা যামান রোজী, যুগ্ম সাধারণ সম্পাদক, রিনা আক্তার, সাংগঠনিক, রেহানা ফারুক শিরিন, সাংগঠনিক, সাফিয়া খাতুন মনি, প্রমুখ। পরে শান্তির পক্ষে আওয়ামী লীগ, বিএনপির নেতৃবৃন্দ ও সুশীল সমাজের প্রতিনিধিরা শপথ বাক্য পাঠ করেন।

আরও পড়ুন