লিডিং ইউনিভার্সিটিতে ইইই ডে-২০১৯ উদযাপন

,
প্রকাশিত : ০২ এপ্রিল, ২০১৯     আপডেট : ২ বছর আগে
  •  
  •  
  •  
  •  
  •  
  •  
  •  
  •  
  •  

সিলেট এক্সপ্রেস ডেস্ক: লিডিং ইউনিভার্সিটিতে ইইই ডে ২০১৯ উদযাপন অনুষ্ঠানে উপস্থিত লিডিং ইউনিভার্সিটি উপাচার্য প্রফেসর ড. মো: কামরুজ্জামান চৌধুরীসহ শিক্ষক-শিক্ষার্থী ও কর্মকর্তাবৃন্দ।

সিলেটের প্রথম বেসরকারী বিশ্ববিদ্যালয় লিডিং ইউনিভার্সিটির ইলেকট্রিক্যাল এন্ড ইলেকট্রনিক ইঞ্জিনিয়ারিং বিভাগের উদ্যোগে দুদিন ব্যাপী ইইই ডে-২০১৯ এর উদ্বোধন গত ১ এপ্রিল সোমবার বিশ্ববিদ্যালয় ক্যাম্পাসে অনুষ্ঠিত হয়েছে। অনুষ্ঠানে প্রধান অতিথি হিসেবে বিশ্ববিদ্যালয়ের উপাচার্য প্রফেসর ড. মো: কামরুজ্জামান চৌধুরী এবং বিশেষ অতিথি হিসেবে আধুনিক বিজ্ঞান অনুষদের ডীন প্রফেসর ড. এম. রকিব উদ্দিন, সামাজিক বিজ্ঞান অনুষদের ডীন প্রফেসর মো: শামস-উল আলম এবং কলা ও আধুনিক ভাষা অনুষদের ডীন প্রফেসর নাসির উদ্দিন আহমেদ উপস্থিত ছিলেন।

ইইই বিভাগের বিভাগীয় প্রধান রুমেল এম এস রহমান পীরের সভাপতিত্বে অনুষ্ঠানে গেস্ট অব অনার হিসেবে উপস্থিত ছিলেন বিশ্ববিদ্যালয়েল রেজিস্ট্রার মেজর (অব) মো: শাহ আলম, পিএসসি।

ইইই বিভাগের ২৩তম ব্যাচের শিক্ষার্থীদের বানানো বিভিন্ন চটপটে রোবট, ডিজিটাল মাঠে ফুটবল খেলার জন্য রোবট সকার এবং প্রজেক্ট শোতে শিক্ষার্থীদের ১৪/১৫ টি প্রজেক্ট ঘুরে ঘুরে দেখেন অতিথিবৃন্দ।

ইইই বিভাগের অগ্রগতির কথা উল্লেখ করে প্রধান অতিথির বক্তব্যে উপাচার্য প্রফেসর ড. মো: কামরুজ্জামান চৌধুরী বলেন, লিডিং ইউনিভার্সিটির ইইই বিভাগের শিক্ষার্থীরা ইতিমধ্যে মঙ্গলগ্রহে ব্যবহারের উপযোগী রোবট, যানজট নিরসনে স্বয়ংক্রিয় গাড়ী পার্কিং পদ্ধতির উদ্ভাবন, ডিজএ্যাবলদের (উরংধনষব) জন্য সয়ংক্রিয় হুইল চেয়ার তৈরী করেছে। দেশ এবং দেশের বাইরে রোবটিক বিভিন্ন প্রতিযোগিতায় অংশ নিয়ে ২০টির অধিক প্রথম পুরস্কার পেয়েছে। তাছাড়া গত বছর ভারতের চেন্নাইয়ের ভেলোড়ে আন্তর্জাতিক প্রতিযোগিতায় অংশ নিয়ে দ্বিতীয় স্থান অর্জন এবং একই বছরে আইআইটি বোম্বেতেও রানার্সআপ হয়ে লিডিং ইউনিভার্সিটি তথা দেশের সুনাম বাড়িয়েছে ইইই বিভাগের শিক্ষার্থীরা।
লিডিং ইউনিভার্সিটির ইইই বিভাগর এগিয়ে চলেছে রকেটের গতিতে উল্লেখ করে সভাপতির বক্তব্যে ইইই বিভাগের বিভাগীয় প্রধান রুমেল এম এস রহমান পীর বলেন, এ বিভাগের অনেক শিক্ষার্থী স্কলারশীপ নিয়ে বিদেশে পড়তে যাচ্ছে, দেশে ভালো চাকুরী করছে, কেউ কেউ নিজেই সফল উদ্যোক্তা হচ্ছে। শিক্ষার্থীদের এ সফলতার আড়ালে নিরলস কাজ করে যাচ্ছেন শিক্ষকদেরকে আন্তরিক ধন্যবাদ জানিয়ে এবং ইইই বিভাগ সেরাদের সেরা হউক এ প্রত্যাশা রেখে তিনি ২৩তম ব্যাচ আরও চমক দেখাক এ শুভকামনা ব্যাক্ত করেন।
অনুষ্ঠানে ইইই বিভাগের শিক্ষক ও শিক্ষার্থীবৃন্দ উপস্থিত ছিলেন।


  •  
  •  
  •  
  •  
  •  
  •  
  •  
  •  
  •  

আরও পড়ুন