বাংলাদেশ ব্যাংক আন্ত: অফিস ক্রীড়া প্রতিযোগিতার পুরস্কার বিতরণী

Alternative Text
,
প্রকাশিত : ২১ মার্চ, ২০১৮     আপডেট : ৩ বছর আগে
  •  
  •  
  •  
  •  
  •  
  •  
  •  
  •  
  •  

মো. আব্দুল বাছিত:
বাংলাদেশ ব্যাংকের ডেপুটি গভর্নর আবু হেনা মো. রাজী হাসান বলেছেন, দেশের জন্য ভালো কাজ করতে হলে মনকে ভালো রাখতে হয়। কর্মক্ষেত্রে দায়িত্বশীলতাকে পরিপূর্ণভাবে উপভোগ করে সময়কে ব্যয় করা একান্ত কর্তব্য। স্ব স্ব ক্ষেত্রে সুষ্ঠু দায়িত্বপালনে খেলাধুলা উদ্দীপনা সৃষ্টি করে। ভালো কাজে এগিয়ে যাওয়ার প্রেরণা দেয়।
বাংলাদেশ ব্যাংক ক্লাব, সিলেট-এর ব্যবস্থাপনায় এবং ব্যাংক ক্লাব, ঢাকা-এর উদ্যোগে ২২তম বাংলাদেশ ব্যাংক আন্ত:অফিস ক্রীড়া প্রতিযোগিতার পুরস্কার বিতরণী অনুষ্ঠানে প্রধান অতিথির বক্তব্যে তিনি একথা বলেন।
বাংলাদেশ ব্যাংক ক্লাব, সিলেট-এর সভাপতি মো. বদরুদ্দোহার সভাপতিত্বে  বুধবার নগরীর উপশহরস্থ আবুল মাল আবদুল মুহিত কমপ্লেক্সে আয়োজিত ক্রীড়া পুরস্কার বিতরণী অনুষ্ঠানে বিশেষ অতিথি হিসেবে উপস্থিত ছিলেন বাংলাদেশ ব্যাংক, সিলেট-এর নির্বাহী পরিচালক মো. শাহ আলম।
বাংলাদেশ ব্যাংক ক্লাব, ঢাকা-এর সহকারী সম্পাদক সুবোধ চন্দ্র ভৌমিকের সঞ্চালনায় অনুষ্ঠানে অন্যান্যের মধ্যে উপস্থিত ছিলেন বাংলাদেশ ব্যাংক প্রধান কার্যালয়ের মহাব্যবস্থাপক কাজী এনায়েত হোসেন, সিলেট-এর মহাব্যবস্থাপক মো. সাজ্জাদ হোসেন, মহাব্যবস্থাপক জীবন কৃষ্ণ রায়, উপমহাব্যবস্থাপক শান্তনু কুমার রায়, ছৈয়দ আহমদ, শামীমা নার্গিসসহ বাংলাদেশ ব্যাংক ক্লাব সিলেট এবং ঢাকা-এর অন্যান্য সদস্যবৃন্দসহ বাংলাদেশ ব্যাংক প্রধান কার্যালয়সহ আটটি কার্যালয়ের বিভিন্ন স্তরের কর্মকর্তা এবং কর্মচারীবৃন্দ উপস্থিত ছিলেন। পুরস্কার বিতরণী অনুষ্ঠানে প্রধান অতিথি এবং অন্যান্য অতিথিবৃন্দ বিজয়ীদের হাতে পুরস্কার তুলে দেন। ২২তম বাংলাদেশ ব্যাংক আন্ত:অফিস ক্রীড়া প্রতিযোগিতায় দ্রুততম মানব নির্বাচিত শিমুল কুমার ঘোষ, মানবী নির্বাচিত হন পূর্ণিমা রানী বসু। ব্যক্তিগত চ্যাম্পিয়ন হন- পুরুষদের মধ্যে শিমুল কুমার ঘোষ, গোলাম রব্বানী, মিজানুর রহমান মহলদার এবং মহিলাদের মধ্যে জেসমিন আক্তারী। অনুষ্ঠানের শেষে ধন্যবাদ জ্ঞাপন করেন বাংলাদেশ ব্যাংক ক্লাব, সিলেট-এর সভাপতি মো. বদরুদ্দোহা। উল্লেখ্য, এবারের ক্রীড়া প্রতিযোগিতায় বাংলাদেশ ব্যাংকের প্রধান কার্যালয়সহ দেশের আটটি কার্যালয়ের ক্রীড়াবিদরা অংশগ্রহণ করেন।


  •  
  •  
  •  
  •  
  •  
  •  
  •  
  •  
  •  

আরও পড়ুন