নবীগঞ্জে ঝুঁকিপূর্ণ ছাদের নিচে বসেই স্বাস্থ্য সেবায় প্রদান

প্রকাশিত : ১৩ জুলাই, ২০১৯     আপডেট : ১১ মাস আগে  
  

নবীগঞ্জে ঝুঁকিপূর্ণ ছাদের নিচে বসেই স্বাস্থ্য সেবায় নিয়োজিত রয়েছেন উপজেলা পরিবার পরিকল্পনা অধিদপ্তর কর্মকর্তা কর্মচারীরা। যেকোনো সময় ছাদটি ধ্বসে প্রাণহানি ঘটতে পারে। নবীগঞ্জ উপজেলা পরিবার পরিকল্পনা অধিদপ্তর ভবনটি দীর্ঘদিন ধরে মানুষ থাকার অনুপোযুগী হয়ে পড়েছে। ভবনটির ছাদ দিয়ে পানি পড়ে অফিসের ভিতরের আসবাপত্র ও গুরুত্বপূর্ণ ফাইল নষ্ট হওয়ার উপক্রম হয়েছে। পরিবার পরিকল্পনা অধিদপ্তরের কর্মকর্তা মোঃ শাহাদাৎ হোসেনের বসার স্থানের উপর ছাদ ফাটল দিয়েছে। আবার অনেক জায়গায় ছাদ অনেকটাই ধ্বসে গিয়েছে। এমন্তঅবস্থায় জীবনের ঝুঁকি নিয়ে ও স্বাস্থ্য সেবায় নিয়োজিত রয়েছেন ওই কর্মকর্তা। এছাড়াও এ অফিসে কর্মরত সকল কর্মচারীরদের নিরাপত্তা নেই। কখন না জানি ছাদটি ধ্বসে মাথায় পড়ে। এই একটি ভয় বিরাজ করে তাদের সবার মনে। এব্যাপারে জানতে চাইলে নবীগঞ্জ উপজেলা পরিবার পরিকল্পনা অধিদপ্তর কর্মকর্তা মোঃ শাহাদাৎ হোসেন বলেন, আমরা গর্ভবতী মায়ের সেবায় নিয়োজিত রয়েছি মাঠ পর্যায়ে ও আমাদের লোক কাজ করছে মায়েদের সেবায়। কিন্তু দুঃখের বিষয় নিজেরাই আছি প্রাণহানির ভয়ে। মাথার উপরে ছাদ অনেকটাই ধ্বসে গেছে বাকি টুকু ও ফাটল ধরেছে। কোন সময় না আমাদের মাথার উপর ছাদটি ধ্বসে পড়ে। তিনি আরো বলেন, এ বিষয়টি নিয়ে কয়েকবার উর্ধ্বতন কর্তৃপক্ষের সাথে আলাপ করেছি। তবে এখন পর্যন্ত কোনা ব্যবস্থা হচ্ছে না। জীবনের নিরাপত্তা চেয়ে উর্ধ্বতন কর্তৃপক্ষের সু-নজর কামনা করেছেন এই কর্মকর্তা।

আরও পড়ুন



আজ পবিত্র শবেমেরাজ

এ মহিমান্বিত রাতে আল্লাহ তায়ালার...