নগরীর বিভিন্ন এলাকায় সেনা টহল, চেকপোস্ট বসিয়ে তল্লাশি

Alternative Text
,
প্রকাশিত : ২৯ ডিসেম্বর, ২০১৮     আপডেট : ২ বছর আগে
  •  
  •  
  •  
  •  
  •  
  •  
  •  
  •  
  •  

একাদশ জাতীয় সংসদ নির্বাচনের ভোট গ্রহণের আর মাত্র একদিন বাকি। শুক্রবার সকাল আটটায় শেষ হয়েছে প্রার্থীদের নির্বাচনী প্রচার-প্রচারণা। রোববার অনুষ্ঠিত হবে ভোটগ্রহণ।

তাই নির্বাচনের সময় যে কোনো সহিংসতা ও বিশৃঙ্খলা ঠেকাতে কঠোর অবস্থানে রয়েছে আইন-শৃঙ্খলা রক্ষা বাহিনী। নগরের বিভিন্ন এলাকায় টহল ও যানবাহনে তল্লাশি করছে সেনাবাহিনী, বিজিবি, র‌্যাব-পুলিশসহ আইনশৃঙ্খলা বাহিনীর সদস্যরা।

শুক্রবার ছুটির দিনে নগরীর সড়ক অনেকটাই ছিল ফাঁকা। তবু আইনশৃঙ্খলা পরিস্থিতি নিয়ন্ত্রণে রাখতে বিভিন্ন স্থানে চেকপোস্ট বসিয়ে দিনভর তল্লাশী চালানো হয়েছে। নির্বাচনকে ঘিরে নেয়া কর্মপরিকল্পনা সুষ্ঠুভাবে সম্পন্ন করতে চালানো হচ্ছে মহড়াও।

দুপুর ১২টার দিকে উপশহর এলাকায় চেক পোস্ট বসিয়ে সেনাবাহিনীর সদস্যরা সন্দেহজনক গাড়ি চেক করেন। একই সাথে সিলেটের ৬টি আসনে দায়িত্বরত সেনা সদস্যরা নিরাপত্তা টহলে রয়েছেন বলে জানিয়েছেন সংশ্লিষ্টরা।

এদিকে সিলেটে র‌্যাবও বিভিন্ন স্থানে অস্থায়ী চৌকি বসিয়ে তল্লাশী চালায় বলে জানিয়েছেন র‌্যাব-৯ এর এএসপি ও সহকারি পরিচালক (মিডিয়া) মনিরুজ্জামান। তিনি জানান, ‘শান্তিপূর্ণ পরিবেশে নির্বাচন আয়োজনের লক্ষ্যে নিরাপত্তা ব্যবস্থা জোরদার করা হয়েছে। র‌্যাবের টহল দলও মাঠে রয়েছে।’

৩০ ডিসেম্বর নির্বাচনের দিন সিলেট মহানগর ও জেলার সবকটি কেন্দ্রে পর্যাপ্ত পুলিশ মোতায়েন থাকবে বলে জানিয়েছে সিলেট জেলা ও মহানগর পুলিশ।

সিলেট মহানগর পুলিশের অতিরিক্ত উপ-কমিশনার (গণমাধ্যম) জেদান আল-মুসা জানান, প্রতিটি কেন্দ্রের বাইরে এক বা একাধিক গুরুত্বপূর্ণ ওয়ার্ডে মোবাইল পেট্রোল টিমের পাশাপাশি ৪/৫টি ওয়ার্ডে একটি করে স্ট্রাইকিং ফোর্স থাকবে।

তিনি জানান, এর বাইরেও সদরদপ্তরে রিজার্ভ স্ট্রাইকিং ফোর্স প্রস্তুত থাকবে এবং প্রতিটি কেন্দ্রে সাদা পোশাকে নজরদারি করবে পুলিশ। এছাড়াও মহানগর পুলিশের আওতাধীন ২৯৩টি কেন্দ্রের মধ্যে ২০২টি গুরুত্বপূর্ণ কেন্দ্রেও বিশেষ নজরদারি রাখা হবে।

এদিকে সিলেট জেলায় ৪ স্তরের নিরাপত্তা ব্যবস্থার কথা জানিয়েছেন সিলেট জেলা পুলিশের অতিরিক্ত কমিশনার শামসুল ইসলাম সরদার। তিনি জানান, প্রতিটি কেন্দ্রে পুলিশ মোতায়েন ছাড়াও প্রতিটি ইউনিয়নে একটি করে মোবাইল পেট্রোল থাকবে এবং প্রতিটি থানায় একটি স্ট্রাইকিং ফোর্স রিজার্ভ থাকবে।

এছাড়াও জেলা পর্যায়ে ২টি বিশেষ স্ট্রাইকিং ফোর্স এবং প্রতিটি কেন্দ্রে সাদা পোশাকে পুলিশ নিরাপত্তা থাকবে বলে জানিয়েছেন তিনি।

রো্ববার সারাদেশে সকাল ৮টা থেকে বিকাল ৪টা পর্যন্ত একযোগে একাদশ জাতীয় সংসদ নির্বাচনের ভোটগ্রহণ অনুষ্ঠিত হবে।


  •  
  •  
  •  
  •  
  •  
  •  
  •  
  •  
  •  

আরও পড়ুন

জাতীয় শোক দিবসে লিডিং ইউনিভার্সিটির কর্মসূচি

         জাতির পিতা বঙ্গবন্ধু শেখ মুজিবুর...

সিলেট প্রেস ক্লাবের নবনির্বাচিত কমিটির সাথে মতবিনিময়

         সিলেট প্রেস ক্লাবের নবনির্বাচিত নেতৃবৃন্দের...

সময়মত বাঁধ না হওয়ায় হাওরবাসীর বিক্ষোভ

           নির্ধারিত সময় অতিক্রান্ত হলেও...

আশুকের মুক্তি না দিলে কঠোর আন্দোলন করা হবে 

         সিলেট এক্সপ্রেস ডেস্ক :   ...