গ্রাম আদালত বিষয়ক রিফ্রেশার্স প্রশিক্ষণ

প্রকাশিত : 19 November, 2019     আপডেট : ৩ সপ্তাহ আগে  
  

স্থানীয় সরকার,সিলেট এর উপ পরিচালক মীর মোহাম্মদ মাহবুবুর রহমান বলেছেন, গ্রাম আদালতকে কার্যকর ও গতিশীল করতে জনপ্রতিনিধিদের দায়িত্বশীল ভূমিকা পালন করতে হবে। ইউনিয়ন পরিষদের চেয়ারম্যান ও সদস্যদের বিচারিক কার্যক্রমকে সহজলভ্য করতে গ্রাম আদালতের ভূমিকা অপরিসীম। বিচারিক প্রক্রিয়া একটি কঠিন ও দীর্ঘ মেয়াদী কাজ। গ্রাম আদালত এটাকে সহজ করে দিয়েছে। এজন্য গ্রাম আদালত সম্পর্কে চেয়ারম্যান সহ জনপ্রতিনিধিদের বেশী করে জানতে হবে। এ কাজে নিয়মিত ও আন্তরিক হলে জনপ্রতিনিধিগণ সহজেই সফল হবেন এবং জনগণকে বিচারিক সেবা দিতে পারবেন।
তিনি ১৯ নভেম্বর মঙ্গলবার সকালে নগরীর বন্দরবাজারস্থ একটি অভিজাত হোটেলে বাংলাদেশে গ্রাম আদালত সক্রিয়করণ প্রকল্প (২য় পর্যায়) স্থানীয় সরকার বিভাগ এর আওতায় সিলেট জেলা প্রশাসনের আয়োজনে ইউনিয়ন পরিষদের চেয়ারম্যান ও প্যানেল চেয়ারম্যানদের গ্রাম আদালত বিষয়ক রিফ্রেশার্স প্রশিক্ষণের ১ম ব্যাচের উদ্বোধনী অনুষ্ঠানে প্রধান অতিথির বক্তব্যে উপরোক্ত কথাগুলো বলেন।
বাংলাদেশে গ্রাম আদালত সক্রিয়করণ প্রকল্প (২য় পর্যায়), ইউএনডিপি, সিলেটের ডিস্ট্রিক্ট ফ্যাসিলিটেটর খন্দকার রবিউল আউয়াল নাসিম এর সঞ্চালনায় প্রশিক্ষণ কর্মশালায় রির্সোসপার্সন অতিথি হিসেবে উপস্থিত ছিলেন অতিরিক্ত জেলা ম্যাজিস্ট্রেট মোহাম্মদ আবুল কালাম, সিনিয়র সহকারী জজ ও জেলা লিগ্যাল এইড অফিসার মোঃ মামুনুর রহমান ছিদ্দিকী, সিনিয়র সহকারী পুলিশ কমিশনার মতিয়ার রহমান।
উপস্থিত ছিলেন, গোয়াইঘাট উপজেলা সমন্বয়কারী শওকত হাসান, ব্লাষ্ট এর বিশ্বনাথ উপজেলা সমন্বয়কারী গীতি রানী মোদক।
প্রশিক্ষণে সিলেট জেলার বিশ্বনাথ, গোয়াইঘাট ও গোলাপগঞ্জ উপজেলার ১৩টি ইউনিয়ন পরিষদের চেয়ারম্যান ও প্যানেল চেয়ারম্যান প্রশিক্ষণে অংশগ্রহণ করেন।

আরও পড়ুন