গোলাপগঞ্জে বেড়ানোর কথা বলে গণধর্ষণ : চার যুবক গ্রেফতার

Alternative Text
,
প্রকাশিত : ২৩ মে, ২০২১     আপডেট : ১২ মাস আগে

গোলাপগঞ্জে প্রেমিকাকে বেড়ানোর কথা বলে বন্ধুদের নিয়ে প্রেমিকাকে গণধর্ষণের ঘটনা ঘটেছে। ঘটনায় চার যুবককে গ্রেফতার করেছে পুলিশ। গ্রেফতারকৃতরা হচ্ছে-এসএমপি’র শাহপরানথানার পীরেরচক গ্রামের মৃত আব্দুল মতিনের পুত্র আক্তার হোসেন (২৩), গোলাপগঞ্জ থানার তুরুকবাগ গ্রামের লিলু মিয়ার পুত্র আব্দুল হাকিম (২০), একই উপজেলার দক্ষিণ কান্দিগাঁও গ্রামের মঈন উদ্দিনের পুত্র রাজন আহমদ (২২) ও বাঘাখালপাড় গ্রামের সাহাব উদ্দিনের পুত্র শিপন আহমদ (১৯)। সিলেটের অতিরিক্ত পুলিশ সুপার (সদর) ও মিডিয়া অফিসার মোঃ লুৎফর রহমান স্বাক্ষরিত এক সংবাদ বিজ্ঞপ্তিতে জানানো হয়, গত শনিবার গোলাপগঞ্জের গন্ডামারা গ্রামের চরোরাগোল্লা নামক স্থানে টিলার পাশে জঙ্গলের ভেতরে একটি মেয়ের শোর চিৎকার শুনে এলাকার জনগণ বাঘা ইউনিয়নের চেয়ারম্যানকে সংবাদ দেন। চেয়ারম্যানের মাধ্যমে সংবাদ পেয়ে গোলাপগঞ্জ মডেল থানার পুলিশ সেখানে অভিযান চালিয়ে ভিকটিমকে উদ্ধার এবং এ চারজনকে আটক করেন।
পুলিশ জানায়, আসামী আব্দুল হাকিমের সাথে ভিকটিমের প্রেমের সম্পর্ক ছিল। এর জের ধরে প্রেমিক ভিকটিমকে প্রলুব্ধ করে মোবাইল ফোনের মাধ্যমে বেড়ানোর কথা বলে মুরাদপুর বাজারে ডেকে আনে। এরপর তাকে নিয়ে ঘটনাস্থলে যায়। ঘটনাস্থলে যাওয়ার পর আসামী আব্দুল হাকিম অপরাপর আসামীদেরকে ডেকে আনে। অন্য আসামীরা এসে সংঘবদ্ধভাবে ভিকটিমকে জোরপূর্বক ধর্ষণ করে। এ ব্যাপারে ভিকটিম বাদী হয়ে এজাহার দাখিল করলে গোলাপগঞ্জ মডেল থানার একটি গণধর্ষণ মামলা রুজু করা হয়।


আরও পড়ুন