গোলাপগঞ্জে এক পরিবারের দুই উত্তরাধিকার সনদ!

প্রকাশিত : ২৫ এপ্রিল, ২০১৮     আপডেট : ২ বছর আগে  
  

সিলেট এক্সপ্রেস ডেস্ক:
গোলাপগঞ্জে একই পরিবারের জন্য দুটি উত্তরাধিকার সনদ সরবরাহ করেছে স্থানীয় ইউনিয়ন পরিষদ। এ নিয়ে চেয়ারম্যানের বিরুদ্ধে তথ্য গোপনের অভিযোগ ওঠেছে।
উপজেলার পূর্ব ভাদেশ্বরের তেরাপুর ইউনিয়নের মৃত মনির উদ্দিন আহমদের যুক্তরাজ্য প্রবাসী পরিবারকে গত বছরের আগস্ট মাসে একটি উত্তরাধিকার সনদপত্র প্রদান করেন ৮নং ভাদেশ্বর ইউনিয়ন পরিষদের ভারপ্রাপ্ত চেয়ারম্যান মোহাম্মদ আলাউদ্দিন। এতে মনির আহমদের জীবিত উত্তরাধিকারী হিসেবে তার স্ত্রী, ৭ ছেলে ও ৩ মেয়েকে দেখানো হয়েছে। যার স্মারক নং- ২০১৭/২৬৮। আর চলতি বছরের ২২এপ্রিল দেয়া একই ব্যক্তির উত্তরাধিকারী সনদে দেখা যায় ভিন্ন চিত্র। ইউপি চেয়ারম্যান জিলাল উদ্দিন স্বাক্ষরিত এই সনদে মনির উদ্দিন আহমদের এক ছেলেকে বাদ দেয়া হয়েছে।
মনির উদ্দিন আহমদের ভাতিজা কবির আহমদ জানান, প্রবাসীর পরিবারের সদস্যদের সকল কাগজপত্র যথাসময়ে সরবরাহ করার পরও অজ্ঞাত কারনে চেয়ারম্যান মনির উদ্দিন আহমদের এক ছেলেকে উত্তরাধিকার সনদ থেকে বাদ দিয়েছেন।
তিনি চেয়ারম্যানের বিরুদ্ধে তথ্য গোপনের অভিযোগ করে বলেন, এ নিয়ে সৃষ্ট যাবতীয় জটিলতার দায়ভার চেয়ারম্যানকে নিতে হবে।
বিষয়টি নিয়ে জানতে চাইলে ৮ নং ভাদেশ্বর ইউনিয়ন পরিষদের চেয়ারম্যান জিলাল উদ্দিন বলেন, প্রথম সনদটি ভুল ছিল, এজন্য পরবর্তীতে সংশোধন করে দেয়া হয়েছে।

আরও পড়ুন