কোম্পানীগঞ্জে জনতার হাতে ডাকাত সুনাই আটক

প্রকাশিত : ০৬ জানুয়ারি, ২০১৯     আপডেট : ১ বছর আগে  
  

সিলেট এক্সপ্রেস ডেস্ক : কোম্পানীগঞ্জ উপজেলার কুখ্যাত ডাকাত সুনাইকে আটক করেছে স্থানীয় জনতা।গত শুক্রবার রাতে ডাকাতির প্রস্তুতিকালে নতুন জীবনপুর গ্রাম থেকে জনতার হাতে ধরা পড়ে ডাকাত সুনাই। এসময় স্থানীয় শত শত জনতা ডাকাতের উপর ক্ষুব্ধ হয়ে এগিয়ে আসেন। এসময় সাবেক মেম্বার হাতেম আলী ডাকাত সুনাইকে গণধোলাইর হাত থেকে রক্ষা করে নিরাপদ স্থানে নিয়ে যান। এ ঘটনায় এলাকার মানুষের মাঝে বিরূপ প্রতিক্রিয়ার সৃষ্টি হয়েছে। গণধোলাই থেকে ডাকাতকে বাঁচানোর ঘটনায় হাতেম আলীর উপর বিক্ষুব্ধ হয়ে উঠেছেন নতুন জীবনপুর গ্রামের লোকজন। তাদের দাবি ৩ লক্ষ টাকার বিনিময়ে ডাকাতকে রক্ষা করা হয়েছে। তারা আইনের ফাঁক ফোকর দিয়ে কোন অবস্থাতেই যাতে কুখ্যাত এ ডাকাত বের হয়ে না আসতে পারে সেজন্য প্রয়োজনীয় ব্যবস্থা নিতে প্রশাসনের কাছে দাবি জানান। শনিবার সকালে আটক ডাকাতকে কোম্পানীগঞ্জ থানা পুলিশের হাতে সোপর্দ করা হয়।
উল্লেখ্য, কোম্পানীগঞ্জের লাকি গ্রামের বাসিন্দা সুনাই ডাকাত দীর্ঘদিন থেকে এলাকায় ডাকাতি করে আসছিল। তার ভয়ে এলাকার মানুষ নিরাপদে যাতায়াত ও ঘুমাতে পারতেন না। ডাকাত সুনাইর বিরুদ্ধে কোম্পানীগঞ্জ ও গোয়াইনঘাট থানায় একাধিক মামলা রয়েছে।

এ ব্যাপারে সাবেক ইউপি মেম্বার হাতেম আলী জানান, এলাকায় ডাকাত ধরা পড়েছে এবং জনরোষ থেকে তাকে উদ্ধার করে পুলিশে সোপর্দ করা হয়েছে। টাকার বিনিময়ে ডাকাতকে রক্ষা করা হয়েছে এরকম অভিযোগের ব্যাপারে তিনি বলেন, এসব বিষয় তার জানা নেই।

কোম্পানীগঞ্জ থানার ওসি ঘটনার সত্যতা নিশ্চিত করে বলেন, আটক ডাকাত সুনাইয়ের বিরুদ্ধে আরো ২ টি মামলা রয়েছে। বর্তমানে সে ওসমানী হাসপাতালে চিকিৎসাধীন আছে।

আরও পড়ুন