কোভিড-১৯ মোকাবেলায় জেলা পরিষদের পক্ষ থেকে চিকিৎসা সরঞ্জাম প্রদান

Alternative Text
,
প্রকাশিত : ২৪ অক্টোবর, ২০২১     আপডেট : ১ মাস আগে
  •  
  •  
  •  
  •  
  •  
  •  
  •  
  •  

সিলেটএক্সপ্রেস সিলেটের বিভাগীয় পরিচালক স্বাস্থ্য ডা. হিমাংশু লাল রায় বলেছেন, বাংলাদেশের স্বাস্থ্য ব্যবস্থাপনা অনেকক্ষেত্রে অপ্রতুল হলেও সকলের সম্মিলিত উদ্যোগ সমন্বয় ও সহযোগিতার ফলে করোনার দূর্যোগময় মূহুর্ত কাটিয়ে উঠে মানুষ অনেকটা স্বস্থির মধ্যে আছেন। এক্ষেত্রে করোনা মোকাবেলায় যেন সৃষ্টিকর্তার আশীর্বাদ প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনার বিভিন্ন নির্দেশ, পরামর্শ ও একক সিদ্ধান্তের ফলে করোনা দূর্যোগ মোকাবেলা করা সম্ভব হয়েছে।
কোভিড-১৯ পরিস্থিতি মোকাবেলায় সিলেট জেলার কোভিড ডেডিকেটেড বিভিন্ন হাসপাতালে জেলা পরিষদ সিলেট-এর পক্ষ থেকে চিকিৎসা সরঞ্জামাদি প্রদান অনুষ্ঠানে প্রধান অতিথির বক্তব্যে তিনি একথা বলেন। ২৪ অক্টোবর সিলেট বিভাগীয় পরিচালক স্বাস্থ্য এর হলরুমে আয়োজিত অনাড়ম্বর অনুষ্ঠানে এসকল চিকিৎসা সরঞ্জামাদি প্রদান করা হয়। সিলেটের সিভিল সার্জন ডা. প্রেমানন্দ মন্ডলের সভাপতিত্বে আয়োজিত অনুষ্ঠানে বিশেষ অতিথি হিসেবে উপস্থিত ছিলেন সিলেট জেলা পরিষদের প্রধান নির্বাহী কর্মকর্তা দেবজিৎ সিংহ, সিলেট জেলা পরিষদের ভারপ্রাপ্ত চেয়ারম্যান জয়নাল আবেদীন, সিলেট জেলা পরিষদের সদস্য মোহাম্মদ শাহানূর, মো. মতিউর রহমান। এসময় স্বাস্থ্য বিভাগের অন্যান্যের মধ্যে উপস্থিত ছিলেন সিলেট বিভাগের সহকারী পরিচালক (রোগ নিয়ন্ত্রণ) ডা. নূরে আলম শামীম, ডেপুটি সিভিল সার্জন জন্মজয় দত্ত, দক্ষিণ সুরমা উপজেলার উপজেলা স্বাস্থ্য ও প.প. কর্মকর্তা ডা. ময়নূল আহসান, সিনিয়র স্বাস্থ্য শিক্ষা অফিসার সুজন বণিক, সিলেট জেলা পরিষদের উপ সহকারী প্রকৌশলী হাসিব আহমেদ, সাঁটলিপিকার একেএম কামরুজ্জামান মাসুমসহ স্বাস্থ্য বিভাগের বিভিন্নস্থরের কর্মকর্তা কর্মচারীবৃন্দ।
বিশেষ অতিথির বক্তব্যে সিলেট জেলা পরিষদের প্রধান নির্বাহী কর্মকর্তা দেবজিৎ সিংহ বলেন, করোনা মোকাবেলায় কিছু স্বাস্থ্য সামগ্রী দিতে পেরে আমরা গর্ব বোধ করছি। তিনি দীর্ঘ করোনাকালে ডাক্তারসহ স্বাস্থ্য বিভাগের কর্মকর্তা কর্মচারীরা যে কষ্ট করেছেন তার জন্য আন্তরিক সহানূভ’তি ব্যক্ত করে বলেন, যারা প্রাণ দিয়েছেন তারা জনগনের জন্য প্রাণ দিয়েছেন তারা শহীদের মর্যাদা পাবেন সেই আশাবাদ ব্যক্ত করি।
সিলেট জেলার বিভিন্ন হাসপাতালে করোনা মোকাবেলায় জেলা পরিষদ সিলেট-এর পক্ষ থেকে অক্সিজেন কনসেনট্রেটর (১০ লিঃ) ২টি, পালস অক্সিমিটার ৪০টি, ডিজিটাল বিপি মেশিন ৪০টি, ইনফ্লারেড থার্মোমিটার ৪০টি, মাইক্রোপোর ১ ও ২ ইঞ্চি ৪০০টি, এন ৯৫ মাস্ক ৫৫০টি, কে এন ৯৫ মাস্ক ৫৫০টি, অক্সিজেন সিলিন্ডার ১০টি, অক্সিজেন ফ্লোমিটার ১০টি সিলেটের সিভিল সার্জনের কাছে প্রদান করা হয়।
প্রধান অতিথির বক্তব্যে সিলেট বিভাগীয় পরিচালক স্বাস্থ্য ডা. হিমাংশু লাল রায় আরো বলেন, করোনা মোকাবেলায় কেউ এককভাবে দায়িত্ব পালন করলে চলবেনা সেক্ষেত্রে সকলের সহযোগিতা প্রয়োজন। এজন্যে আমাদের বর্তমান সামর্থকে যথার্থভাবে কাজে লাগিয়ে তৃণমূল পর্যায়ে প্রতিটি প্রতিষ্ঠানকে গড়ে তুলতে পারি, তাহলে জনগণ আর কেন্দ্রমূখী হবেনা। দূর্যোগ ও দু:সময়ে স্বাস্থ্য বিভাগের সকল স্তরের কর্মীরা সাধারণ মানুষের পাশে যাতে থাকতে পারে সেজন্যে সকল মহলের সহযোগিতা প্রয়োজন।


  •  
  •  
  •  
  •  
  •  
  •  
  •  
  •  

আরও পড়ুন

ক্যামেরা কাহিনী – ২ পাভেল রহমান

         পাভেল রহমান   স্বাধীনতা...

সিলেটে খেলোয়াড়দের মাঝে আর্থিক অনুদানের চেক বিতরণ

        সিলেট এক্সেপ্রেস ডেস্ক দেশব্যাপী করোনাভাইরাস...

সিফডিয়া’র ২০ বছর পূর্তি উপলক্ষে বই বিতরন

        সিলেটএক্সপ্রেস গণ-মাধ্যম ও সমাজ উন্নয়ন...