কবিরা সুন্দরের পুজারী ধ্যানের রাজ্যে তারা পাঠকদের চিন্তার খোরাক যোগান

প্রকাশিত : ২৭ ফেব্রুয়ারি, ২০১৮     আপডেট : ৩ বছর আগে
  •  
  •  
  •  
  •  
  •  
  •  
  •  
  •  
  •  

সিলেট এক্সপ্রেস ডেস্ক : কবিরা সুন্দরের পুজারী, কবিতার জমিনে লাঙ্গল দিয়ে চাষ করে, কবিতার জন্য সাধনা করে তারা পৃথিবীকে একটি মায়াময় আবাসস্থলে পরিণত করার আনন্দে উল্লাসিত থাকেন। কবিরা ধ্যানের রাজ্যে অবস্থান করে সমাজকে সুন্দর সুন্দর কবিতা উপহার দিয়ে সমাজ বিনির্মানে বলিষ্ট ভূমিকা পাল্ন করেন। গত সোমবার কেন্দ্রীয় মুসলিম সাহিত্য সংসদ হলে সোহাগ সাহিত্য গোষ্টীর আয়োজনে প্রবাসী কবি ইকবাল বাহার সুহেল এর “কবিতা চূর্ণ”, মোহাম্মদ ইকবাল এর “জাফরানি মৌচাক” ও কবি শামীম আহমদের “আগুনের সংলাপ” গ্রন্থদ্বয়ের প্রকাশনা অনুষ্ঠানে প্রধান অতিথির বক্তব্যে যুক্তরাষ্ট্র প্রবাসী বিশিষ্ঠ কলামিষ্ট, গবেষক ও কবি ফকির ইলিয়াস প্রধান অতিথির বক্তব্যে এ কথা বলেন। সোহাগ সাহিত্য গোষ্টীর উপদেষ্টা সাবেক ইউপি চেয়ারম্যান ময়নূল ইসলামের সভাপতিত্বে সভার শুরুতে পবিত্র কোরআন থেকে তেলাওয়াত করেন ক্বারী মোঃ লায়েক আহমদ মাছুম। শুভেচ্ছা বক্তব্য রাখেন এডভোকেট আব্দুস সাদেক লিপন, সমাজসেবী আব্দুল গফ্ফার বাচ্চু, কলামিষ্ট হারান কান্তি সেনইকবাল বাহার সুহেল এর “কবিতা চুর্ণ” গ্রন্থের মুল প্রবন্ধ উপস্থাপন করেন কলামিষ্ট ডাঃ মাওলানা লোকমান হেকিম, শামীম আহমদ এর “আগুনের সংলাপ” গ্রন্থের উপর মূল প্রবন্ধ উপস্থাপন করেন ইংরেজী ম্যাগাজিন “দি আর্থ অব অটোগ্রাফ” সম্পাদক ও লিডিং ইউনিভার্সিটির ইংরেজী বিভাগের ছাত্র আব্দুল কাদির জীবন। কবি মোঃ ইকবালের “জাফরানী মৌচাক” কবিতা গ্রন্থের প্রবন্ধ উপস্থাপন করেন অধ্যাপক কবি বাছিত ইবনে হাবিব। প্রকাশনা অনুষ্ঠান শেষে সংবর্ধনা জবাবের কবি শামীম আহমদ বলেন, এই দেশ এই মাটি আমার হৃদয়ের সুবাস। এই দেশের মাটি বুকে মুখে মাখলেই আমি আগুনের আগরের সুগন্ধ অনুভব করি। এই প্রকাশনা ও সংবর্ধনা অনুষ্ঠানের আমি না আসলে বুঝতেই পারতাম না যে, এ দেশের মানুষ আমাকে কতটা ভালবাসে। আমি আমার দেশকে কতটা ভালবাসী। কবি মোঃ ইকবাল সংবর্ধনার জবাবে বলেন দেশে এসে প্রকাশনা অনুষ্ঠানে আপনাদের সাথে মিলিত না হলে এবং আপনাদের সংবর্ধনা না পেলে আমি বুঝতেই পারতাম না আমি দেশ ও দেশের মানুষকে কতটা ভালবাসি এবং আপনারা আমাকে কতটা ভালোবাসেন। আজকের এই অনুষ্ঠান আমার জন্য স্মৃতি হয়ে থাকবে। আমি আজীবন আপনাদের এই ভালোবাসার ঋণ শোধ করার প্রয়াসে লিপ্ত থাকব। কবি ইকবাল বাহার সুহেল তার বক্তব্যে বলেন, কবিতা জীবনের কথাবলে, আর জীবন মাটি ও মানুষের সাথে কতটা সম্পৃক্ত এবারের প্রকাশনা অনুষ্ঠানে এসে আমি হাড়ে হাড়ে তা টের পাচ্ছি। আমি আগামী সব প্রকাশনা এদেশের মাটিতেই করবো ইনশাআল্লাহ। বিশেষ অতিথির বক্তব্যে মুসলিম সাহিত্য সংসদের সাধারণ সম্পাদক অধ্যাপক দেওয়ান মাহমুদ রাজা চৌধুরী বলেন, প্রবাসীরা এদেশের অমৃতের সন্তান। আপনাদের পাঠানো রেমিটেন্স অর্থনীতিকে গতিশীল করছে। বর্তমান সরকারের ভিশন-২১ এর অগ্রাযাত্রাকে আরো সামনের দিকে এগিয়ে নিয়ে যাচ্ছে। এ জয়যাত্রা অব্যাহত থাকুক। দেশ সামনের দিকে এগিয়ে যাক। আমরা বহির্বিশ্বে বাঙ্গালী জাতি হিসাবে মাথা উচু করে দাঁড়াই। কবি শামীম আহমদকে কবিতার অসামান্য অবদানের স্বীকৃতি স্বরুপ ভারতের “শ্যামল মেমোরিয়াল ট্রাস্টের” দেওয়া সম্মাননা স্মারক এবং আসাম থেকে উদিয়মান কবি পদক এবং সোহাগ সাহিত্য গোষ্টির দেওয়া স্বর্ণ পদক প্রদান করা হয়। এ সময় সংস্থার পক্ষ থেকে আমন্ত্রিত অতিথীদের উত্তরীয় পরিয়ে দেওয়া হয়। অনুষ্ঠানে কবি শামীম আহমদকে বিভিন্ন সংঘটনের পক্ষ থেকে ফুলেল সম্মাননা দেওয়া হয়।


  •  
  •  
  •  
  •  
  •  
  •  
  •  
  •  
  •  

আরও পড়ুন

মৌলভীবাজারে তুলার মিলে আগুন

         এইচ এম সামাদ,মৌলভীবাজার: মৌলভীবাজার সদর...

সংবর্ধনা প্রাপ্তি জনপ্রতিনিধিদের সামাজিক দায়বদ্ধতা বাড়িয়ে দেয়

         মো. আব্দুল বাছিত: জনপ্রতিনিধিরা সমাজ...

সিলেট জেলা বিএনপির অনশন শনিবার

         সিলেট এক্সপ্রেস ডেস্ক :  বাংলাদেশ...